‘উত্তরপ্রদেশে কেমন শাসন ব্যবস্থা চলছে? এক নেতা বললেন মা-মেয়ে দুজনকেই জ্বালিয়ে দাও’! হাথরাস কাণ্ডে বিজেপি কে কটাক্ষ মমতার!

নিজস্ব প্রতিবেদন :-উত্তরপ্রদেশের হাতরাস এ ঘটে যাওয়া ১৯ বছরের মেয়েকে ধর্ষ-ণ কা-ণ্ডে রীতিমতো উত্তাল গোটা দেশ । রাস্তার মোড়ে মোড়ে জ্বলছে আ-গু-ন । হচ্ছে প্রতিবাদ । চলছে কটাক্ষ, প্রশ্ন পাল্টা কটাক্ষ । বলাবাহুল্য থেমে নেই কেউ ।

একদিকে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারা ক্রমাগত প্রশ্ন ছুড়ে যাচ্ছেন উত্তরপ্রদেশ সরকার এবং তার প্রশাসনের বিরুদ্ধে অন্যদিকে কেউ কেউ আবার সরাসরি প্রশ্ন করেছেন দেশের প্রধানমন্ত্রী কে । তবে উত্তরপ্রদেশে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে টোপ দাগলেন যোগী আদিত্যনাথ এর উপর বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি । কি বললেন আপনাদের।-

ঐদিন মুখ্যমন্ত্রী একটি বৈঠক থেকে সরব হন উত্তরপ্রদেশে ঘটে যাওয়া এই নির্ল-জ্জ ঘটনার বিরুদ্ধে । তিনি বলেন যে উত্তরপ্রদেশে কোন শাসন ব্যবস্থা নেই । নির্বাচনের সময় বাইরে থেকে খাবার নিয়ে তা দলিত ঘরে খাই এবং বাইরে বলতো যে তারা দলিত ঘরেও খাবার খেয়েছে । অথচ সেই সম্পদের উপর অত্যাচার হয়।

এর পাশাপাশি তিনি বলেন যে পুরাণে সীতাকে অগ্নি পরীক্ষা দিতে হয়েছিল কিন্তু উত্তর প্রদেশ তার থেকে জঘন্যতম এখানে রেপ করে পুড়িয়ে ফেলা হয় প্রমাণ লোপাটের জন্য। এবং সেই কাজে সাহায্য করে স্বয়ং প্রশাসন । এর থেকে বাংলা অনেক ভালো । বাংলায় কোন অশান্তি হলে তার ৭২ ঘণ্টার মধ্যে ব্যবস্থা নেই এখানকার পুলিশ । এমনটাই বক্তব্য মুখ্যমন্ত্রীর।

শুধুমাত্র যে দলিল বা নিম্নবর্ণের শ্রেণীর মানুষের উপর অত্যাচা-র হচ্ছে তা নয় ওই বৈঠক থেকে তিনি বলেন জেনারেল কাস্ট যারা তাদের ওপরও হয়েছেন অত্যা-চা-র। নির্বাচনের আগে চা বাগান খুলে দেওয়ার নাম করে এখনো পর্যন্ত খোলা হয়নি । রাখা হয়নি সেই প্রতিশ্রুতি। কার্যত মুখ্যমন্ত্রী এই প্রসঙ্গে যোগী আদিত্যনাথ এবং তার প্রশাসনকে প্রশ্ন তুলেছেন একরাশ ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button