‘ সরি বাবু, আমায় ক্ষমা কোরো’, ম’র্গে সুশান্তের বুকে হাত রেখে বলেছিলেন রিয়া, প্রকাশ্যে আসলো সেই প্রমান

সিবিআই-এর তদ’ন্তকা’রী অফিসাররা মুম্বাই পৌঁছে বান্দ্রা পু’লিশ স্টেশন থেকে সুশান্ত ম’য়নাত’দন্তে’র রিপোর্ট, সহ তার ফ’রেন’সিক রিপোর্ট, সুশান্তের ফোন, ল্যাপটপ, মুম্বাই পুলিশের তদ’ন্তে বিভিন্নজনের থেকে নেওয়া বয়ান সবকিছু সংগ্রহ করেছেন। একটি সংবাদমাধ্যম দাবি করে সে কুপার হা’সপাতা’লে সুশান্তের ময়’নাত’দন্ত হয়েছিল সেখানকার এক আধিকারিক বলেছিলেন প্র’য়াত সুশান্তের পরিবারের কোন সদস্যের সেখানে প্রবেশ করার অনুমতি ছিল না।

কিন্তু হা’স’পাতা’লে সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায় 15 ই জুন সুশান্তের প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী হা’সপাতা’লে ম’র্গ থেকে আরো দুজনের সাথে বের হচ্ছেন। রিয়ার সাথে আরও দুজনকে দেখা গিয়েছে। রিয়া সেখানে 45 মিনিট ছিলেন। এই বিষয়টি নিয়ে তীব্র প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে যে রিয়া পরিবারের সদস্য না হয়েও কিভাবে সেখানে উপস্থিত ছিলেন? অনেকেই অভি-যোগ তুলেছেন যে রিয়া সুশান্তের ময়’নাত’দন্তে’র বেশ কিছু রিপোর্ট হয়তো সরিয়ে দিয়েছেন।

পুলিশের অনুমতি নিয়ে মৃ’তের পরিবারের লোক পুলিশের উপস্থিতিতে ম’র্গে ঢুকতে পারেন। সমস্ত কিছু তথ্য আবার খুঁটিয়ে ত’দন্ত করবে সিবিআই।সম্প্রতি একটি সংবাদমাধ্যমের কাছে কুপার হাসপাতালের কর্মী সুজিত সিং রাঠোর জানিয়েছেন, 15 ই জুন রিয়া চক্রবর্তী কুপার হাসপাতালে এসে ম’র্গের ভিতরে ঢুকে ছিলেন এবং সুশান্তের বুকে হাত রেখে বলেছিলেন, “আমাকে ক্ষমা কোরো বাবু।” এর পরেই তিনি প্র’চণ্ড কা’ন্নায় ভে-ঙে পড়েছিলেন, তারপর তাকে ধরাধরি করে ম’র্গের বাইরে নিয়ে আসা হয়।

সুজিত দাবি করেছেন তিনি ওই সময় রিয়ার সাথে ম’র্গে ঢুকেছিলেন, তাই তিনি এই ঘটনার অন্যতম প্র-ত্য-ক্ষদ-র্শী।
তাছাড়াও সুজিত জানিয়েছেন, রিয়ার মা সন্ধ্যা চক্রবর্তী এবং ভাই সৌভিক চক্রবর্তী ও ম’র্গের ভিতরে ঢুকতে অনুমতি চেয়েছিলেন কিন্তু তারা অনুমতি পাননি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button