সেই রানাঘাট স্টেশনেই ফিরে যেতে হলো রানু মন্ডলকে, খাবারের জন্য বলতে পারছেন না কাউকে, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-রানাঘাট স্টেশন চত্বরে লতা মঙ্গেশকরের গাওয়া গান গেয়ে রাতারাতি রাতারাতি তারকা হয়ে যাওয়া রানু মন্ডল এ কথা নিশ্চয়ই মনে মনে মনে কথা নিশ্চয়ই মনে মনে আছে। যে কিনা রাতারাতি সোশ্যাল মিডিয়াতে রীতিমত ঝড় তুলেছিল। লক্ষ্য লক্ষ্য মানুষ তার গানের প্রতি আকৃষ্ট হয়েছিল, সাধুবাদ জানিয়ে ছিলেন ।

এবং সোজা স্টেশন চত্বরে থেকে চলে আসে লাইমলাইট এর কেন্দ্রবিন্দুতে। রানু মন্ডল কে ঘিরে এর আগেও অনেক বিতর্ক হয়েছে কিন্তু এই লকডাউন পর্বে কেমন আছে সে ? কিরকম ভাবে কাটছে তার দিন গুলি ? সেই সম্পর্কে কোন জ্ঞান আছে আপনাদের? যদি না থেকে থাকে তাহলে তা জানাবো আপনাদের আমরা।

রানাঘাটের স্টেশনে লতা কন্ঠে রানু মন্ডল “এক পেয়ার কা নাগমা হে ” গানটি কে রীতিমত রাতারাতি ভাইরাল হয়েছিলো । স্টেশনের ভিখারি থেকে হয়ে যায় তারকা। এর পাশাপাশি আসতে থাকে বিভিন্ন নিত্য নতুন অফার অফার নতুন অফার, গানের সুযোগ । হাতছাড়া করেননি তিনি একটাও । তারপর তাকে ঘুরে তাকাতে হয়নি আর । সম্প্রতি হিমেসের সাথে একটি গান ডুয়েট ডুয়েট করেছেন তিনি। তবে তার অহংকার রীতিমতো তাকে ফেলেছে মুখ থুবরে।

এই লকডাউন পর্বে একটি ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে তিনি ত্রাণের সাহায্য চেয়ে ছিলেন যা কিনা তিনি নিজের হাতে গরিব বাচ্চাদের দেবে বলে ঠিক করেছিল। কিন্তু তারপর আর কোনো আগ্রহ দেখায়নি রানু মন্ডল । শুধুমাত্র এটুকুই নয় বেশ কিছুদিন আগে একটি শপিং মলে তার অনুগামীদের প্রতি বাজে ব্যাবহারের ফলে রীতিমতো বিতর্কে জড়িয়ে ছিলেন এ রানাঘাটের রানু মন্ডল । এ বিষয়ে তীব্র নিন্দা করেছেন হিমেশ ও । তিনি বলেছেন রানু মন্ডলের ক্ষমা চাওয়া উচিত । কিন্তু সে সব এর তিনি কোনো পরোয়া করেননি ।

এই দীর্ঘ লকডাউনে তিনি জানাচ্ছেন যে তার বাড়িতে বিন্দুমাত্র খাবার নেই। এমনকি সেলিব্রিটি রানু মন্ডল ৫ দিন না খেয়ে ছিল । শুধুমাত্র বাড়িতে কোন খাবার ছিল না বলে । আশপাশ থেকে কেউ এসে তাকে সাহায্য করেনি । এমনও দিন গেছে শুধুমাত্র ভাত খেয়েছে বা শুধুমাত্র সবজি সেদ্ধ খেয়েছে। এমনটা জানাচ্ছে রানু মন্ডল । এর পাশাপাশি তিনি বলেছেন ভগবান ছাড়া সকল মানুষই স্বার্থপর ।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button