মোদী সরকার অনেক মানুষকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করছে! মুর্শিদাবাদ প্রসঙ্গে মোদীর বিরুদ্ধে তোপ দাগালো CPIM

নিজস্ব প্রতিবেদন :- সম্প্রতি মুর্শিদাবাদে ঘটে যাওয়া ঘটনাকে ঘিরে ফের নতুন বিতর্কে জড়ায় শাসক দল । প্রশ্ন করতে ছাড়েনি কোনো রাজনৈতিক দলই । শুধুমাত্র দলের উপরে যে প্রশ্ন উঠেছে তা নয় প্রশ্ন উঠেছে গোয়েন্দা বিভাগের সক্রিয়তাকে নিয়েও । যখন প্রায় সমস্ত রাজনৈতিক দলগুলি যখন একের পর এক রাজ্য সরকার তথা শাসক দলের উপর প্রশ্নের সুর চড়াচ্ছেন ,ঠিক তখনই এই বিষয়ে মুখ খুললেন মুর্শিদাবাদের প্রাক্তন সাংসদ তথা সিপিএম নেতা বদরুদ্দোজা খান ।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য বহরমপুর এর সাংসদ এবং রাজ্য কংগ্রেসের সভাপতি যখন এই জঙ্গী গ্রেপ্তারের ঘটনা নিয়ে সরব হয়েছেন ঠিক তখনই তাদের জোটের সঙ্গীর মুখ থেকে শোনা গেল এক অন্য রকম বার্তা । কোথাও যেন এই বার্তা সাধারণ মানুষের কাছে একটা গা ছাড়া ভাবের লক্ষণ প্রকাশ পেয়েছে ।

মুর্শিদাবাদের প্রাক্তন সাংসদ তথা সিপিএম নেতা বদরুদ্দোজা খান এ বিষয়ে বলেন “যদি ওরা সত্যি যদি হয়ে থাকে তাহলে আইন আইনের পথে চলবে কিন্তু মোদি সরকার অন্যায়ভাবে অনেককে জেলে পুড়ছে ” । আমরা সকলেই জানি কিছুদিন আগে JNU র প্রাক্তন ছাত্র নেতা উমর খালিদ এর এর গ্রে-প্তা-র এর ঘটনা । ঐদিন প্রাক্তন সাংসদ তথা সিপিএম নেতা উদাহরণস্বরূপ JNU র উমর খালিদ এর কথা তুলে ধরেন ।

এর আগে একদিন এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রদেশ কংগ্রেসের সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরী জানান যে ” যদি ‘আল-কায়েদার’ মতন কুখ্যাত জঙ্গিগোষ্ঠী এই বাংলায় এসে ঘাঁটি গাড়তে পারে তাহলে বুঝে নিতে হবে রাজ্যের পরিস্থিতি ঠিক কতটা ভয়াবহ”।

তার সাথে তিনি শাসক দল কে নিশানা করে এটাও বলেন যে ” পুলিশ তৃণমূলকে বাঁচাতে যখন ব্যস্ত তখন জঙ্গির এই সক্রিয়তা তাদের নজরে না আসাটাই স্বাভাবিক”। শুধু মাত্র এখানেই তিনি থেমে থাকেননি । কাঠ গড়ায় তুলেছেন এ রাজ্যের গোয়েন্দা বিভাগ কেউ ।

তবে রাজনৈতিক মহলের একাংশের মতামত যেহেতু বহরমপুর এর সাংসদ তিনি তাই তার এই প্রতিক্রিয়া হওয়াটা স্বাভাবিক । বেশ কিছুদিন আগে বর্ধমানের খড়দাগরের কাণ্ডে সরব হয়েছিলেন বিজেপি । রাজ্য সরকার সেটিকে ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করে এমনটাই দাবি বিজেপির ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button