বাইক প্রেমীদের জন্য দারুন সুখবর, একবার চার্জ দিলেই চলবে 120 কিমি, বাজারে এলো দেশীয় ইলেকট্রিক বাইক!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- দেশে প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে পেট্রোল এবং ডিজেলের দাম । তাই কার্যত বাইক প্রেমীরা তাদের বাইক গ্যারেজে রেখে রীতিমতো যাতায়াত করছে সাইকেল বা অন্য কোনো যানবাহনের মাধ্যমে। যখন দেশে এত আর্থিক সংকট সেই মুহূর্তে দামি পেট্রোল ভরে বাইকে চডড়া নিতান্ত একটি বিলাসিতা । কাজেই সে ভাবে চালানো হয়ে ওঠে না বাইক। রেখে দেওয়া আছে সেই গ্যারেজে যত্ন করে । কিন্তু সম্প্রতি বাজারে এমন একটি ঘটনা ঘোরাফেরা করছে যা শুনলে আপনিও ভাববেন এবার হয়তো সময় এসেছে আবার বাইক নিয়ে ঘুরে বেড়ানোর । রাস্তাজুড়ে দাপিয়ে বেড়ানোর। কি সেই খবর ?।

পেট্রোল-ডিজেলের পাশাপাশি বর্তমান বাজারে ইলেকট্রিক গাড়ি বা ইলেকট্রিক বাইক এবং স্কুটার এর প্রচলন এসেছে। কিন্তু তাদের স্পিড এবং কার্যক্ষমতা অন্যান্য পেট্রোল বাইকের তুলনায় অনেক অংশে কম । তাই সাধারণত মানুষের প্রথম সারির পছন্দের তালিকায় এইসব স্কুটার বাইক রেখেন না । কিন্তু সম্প্রতি একটি বাইক নির্মাণ কোম্পানি একটি দুর্দান্ত খবর ঘোষণা করেছে । সর্বোচ্চ ১২০ কিলোমিটার পর্যন্ত দৌড়াতে পারা এই বাইকটি নাম KRIDN তৈরি করেছে বাইক নির্মাণ কোম্পানি One Electric ।

এই ইলেকট্রিক বাইক এ রয়েছে অত্যাধুনিক ফিচারস । রয়েছে এমন কিছু নতুন ফিচার যা হয়ত এর আগে আপনি একটি পেট্রোল বাইকেও দেখতে পান নি । কি সেই ফিচারস? আসুন দেখে নেওয়া যাক। কোম্পানি তরফ থেকে জানানো হচ্ছে ৩ কিলোওয়াট সম্পন্ন একটি ব্যাটারি আছে এ বাইক এর মধ্যে যা সর্বোচ্চ ১২০ কিলোমিটার পর্যন্ত দৌড়াতে পারবে ।

এই ব্যাটারি চ সম্পূর্ণরূপে চার্জ হতে সময় লাগে ৪-৫ ঘন্টা এর পাশাপাশি তারা জানিয়েছেন ৫.৫ কিলোওয়াট সম্পন্ন একটি মোটর আছে যা ১৬৫ ন্যানোমিটারের টর্ক তৈরি করতে পারে। ফলে বাইকটি সর্বোচ্চ ৯৫ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টায় দৌড়াতে পারবে । এর পাশাপাশি এর ইঞ্জিন এর ক্ষমতা নিয়ে জানিয়েছে ওই সংস্থা । সংস্থা বলেছে ০-৬০ স্পিড তুলতে নেই মাত্র ৮ সেকেন্ড ।

কিন্তু কত দাম বাইকের ? আদেও কি মিলবে ভারতের বাজারে ? হ্যাঁ অবশ্যই মিলবে। এর নির্মাণ কোম্পানি জানিয়েছে টিউবলেস টায়ার, ডিজিটাল ক্লাস্টার ,হাইড্রোলিক ব্রেক সহ অত্যাধুনিক ফিচারস যোগ করা আছে বাইকে। এই বাইকের মূল্য সর্বোচ্চ হতে পারে ১.১২ লক্ষ টাকা । ইতিমধ্যে অনলাইনে বুকিং চালু হয়ে গেছে। তবে এই মুহূর্তে ব্যাঙ্গালোর, চেন্নাই ,দিল্লি, হায়দ্রাবাদ এই চারটি শহরে মিলছে এই ইলেকট্রনিক বাইক । তবে খুব শিগগিরই আমাদের কাছাকাছির বাজারে আসবে এই বাইক এমনটাই জানিয়েছে বাইক নির্মাণ সংস্থা ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button