“দুর্গাপূজোটা বাংলায় এবার অন্তত বন্ধ করুন” করোনা পরিস্থিতিতে বিশেষ আবেদন দিলীপ ঘোষের!

নিজস্ব প্রতিবেদন:-বেশ কিছুদিন আগে এক দলীয় কর্মসূচি থেকে দিলীপ ঘোষকে বলতে শোনা গিয়েছিল যে রাজ্যে আর করোনা নেই । লকডাউন রেখে কোন লাভ নেই। সেই দিলীপ ঘোষ গাইলেন উল্টো সুর এবার সেই দিলীপ ঘোষ সরব হলেন বাঙালি শ্রেষ্ঠ পুজোর দুর্গাপূজার কে নিয়ে। যাকে নিয়ে রীতিমতো ঘনীভূত করছে বিতর্কের মহল ।

ঐদিন সাংবাদিক বৈঠকে তিনি জানান যে করোনার এই পরিস্থিতিতে মাথায় রেখে দুর্গাপুজো টা বন্ধ করা হোক । দুর্গাপুজো হোক কিন্তু দূর্গা উৎসব টা বন্ধ করা হোক। যদিও তার এই মন্তব্য ঘিরে শুরু হয়েছে বিতর্ক । এর পাশাপাশি বড়োসড়ো ক্ষোভ এর সৃষ্টি হচ্ছে বাঙালির মনে । কারণ বাঙালি সর্বশেষ্ঠ দুর্গাপূজা এবং সেই পুজো নিয়ে এই ধরনের মন্তব্য মোটেও কাম্য নয় তাও আবার বাংলার ই এক সাংসদের থেকে।

এবছরের পুজো কমিটি গুলো নিয়ে বৈঠক করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বেশ কিছুদিন আগে। সেখানে মণ্ডপে সব খোলা রেখে সানিটাইজার এর ব্যবস্থা রেখে পুজো করার অনুমতি দেন তিনি । তবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সিদ্ধান্তকে মেনে নিতে নারাজ বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন এ বছর পহেলা বৈশাখ ,হোলি, মহরম , রামনবমী কিছুই হয়নি কিন্তু দুর্গাপূজা হচ্ছে ।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দুর্গাপূজা নিয়ে তিনি বেশ চিন্তিত আছেন তিনি । তার সাথে সাথে তিনি সকলের উদ্দেশ্যে একটি অনুরোধ করেছেন এবং বলেছেন যে মন ভরে মায়ের কাছে প্রার্থনা করুন যাতে আমরা খুব তাড়াতাড়ি এই মহামারী কবল থেকে বেরিয়ে আসতে পারি । একমাত্র মা পারেন আমাদের এই সমস্যা থেকে বের করে আনতে।

বেশ কিছুদিন আগে দিলীপ ঘোষ জানিয়েছিলেন যে পুজোর আগে রাজ্যে পরিদর্শনে আসছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ তবে কোন প্যান্ডেল এর উদ্বোধন করতে নয় আসছেন দলীয় বৈঠক করতে। তারপরে তার এই দুর্গাপূজা নিয়ে এধরনের মন্তব্য রীতিমতো বিতর্ক সৃষ্টি করেছে রাজ্যজুড়ে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও পড়ুন

Back to top button